ঢাকা, সোমবার, নভেম্বর ২০, ২০১৭

সংবাদ শিরোনাম 

প্রধানমন্ত্রী : রোহিঙ্গা ইস্যুতে বাংলাদেশের প্রতি জার্মানী, সুইডেন ও ইইউর জোরালো সমর্থন   |   আবহাওয়া : আকাশ আংশিক মেঘলাসহ সারাদেশের আবহাওয়া প্রধানত শুষ্ক থাকতে পারে   |   জাতীয় সংসদ : প্রতিবন্ধীদের শিক্ষার মূল ধারায় নিয়ে আসতে সরকার বিভিন্ন পদক্ষেপ নিয়েছে : শিক্ষামন্ত্রী * সারাদেশে খাদ্য গুদাম সংস্কারের কাজ চলমান রয়েছে : খাদ্যমন্ত্রী * গার্মেন্টস পণ্য রপ্তানিতে গত অর্থবছরে ২৮,১৪৯ মিলিয়ন ডলার আয় হয়েছে : বাণিজ্যমন্ত্রী   |   বিনোদন ও শিল্পকলা : সওগাত সম্পাদক মোহাম্মদ নাসিরউদ্দিনের জন্মবার্ষিকী আগামীকাল   |   রাষ্ট্রপতি : প্রতিবন্ধীদের সম্পদে পরিণত করুন : রাষ্ট্রপতি * সুফিয়া কামালের জীবনাদর্শ ও সাহিত্যকর্ম তরুণ প্রজন্মকে দেশপ্রেমে উদ্বুদ্ধ করবে : রাষ্ট্রপতি   |   প্রধানমন্ত্রী : রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে সহযোগিতার প্রস্তাব জাপানের * রোহিঙ্গা সংকট প্রশ্নে বাংলাদেশের সঙ্গে সংহতি প্রকাশ প্রিন্সেস সোফির * রোহিঙ্গাদের ওপর নৃশংসতা মানবাধিকারের মৌলিক লঙ্ঘন : মার্কিন সিনেটর   |    জাতীয় সংবাদ : ভারতের সাথে সম্পর্ককে ক্ষতিগ্রস্ত করতেই রংপুর হামলা : ওবায়দুল কাদের * উন্নয়নের সুফল ঘরে ঘরে পৌঁছাতে সমাজতন্ত্র কার্যকর চেতনা : তথ্যমন্ত্রী* কবি সুফিয়া কামালের মৃত্যুবার্ষিকী আগামীকাল    |    অর্থনীতি : বাংলাদেশে চীনের বিনিয়োগ আহ্বান করেছে এফবিসিসিআই * এবার ভ্যাট সম্মাননা কার্ড পাবে ব্যবসায়ীরা * ডিএসইর আজকের লেনদেনের পরিমাণ প্রায় ৯৭১ কোটি টাকা : দাম বেড়েছে ১৩৪টির   |    জাতীয় সংবাদ : নির্বাচন কমিশনের কাজে হস্তক্ষেপ করবে না সরকার : শাজাহান খান * অবকাঠামো উন্নয়নে সরকার ও এডিবির মধ্যে ২৬০ মিলিয়ন ডলারের চুক্তি স্বাক্ষর * এমডিজির সাফল্যের ধারাবাহিকতায় এসডিজি অর্জনে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে : শিল্পমন্ত্রী   |   খেলাধুলার সংবাদ : সাহায্য সংস্থা ইউএসএইডের শুভেচ্ছাদূত হচ্ছেন মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ *শীর্ষে থেকেই কাল কুমিল্লার মুখোমুখি ঢাকা; জয়ের ধারায় ফেরার লক্ষ্য রংপুর ও সিলেটের *জন্মদিনে ড্যাডসওয়েলের বিশ্ব রেকর্ড ৪৯০ রান   |    জাতীয় সংবাদ : রসিক নির্বাচন অবাধ ও সুষ্ঠু করার জন্য যা যা দরকার কমিশন তাই করবে : সিইসি * চলচ্চিত্র একটি দেশের সংস্কৃতি ও ঐতিহ্যের স্মারক : সংস্কৃতিমন্ত্রী * এবার প্রশ্নপত্র ফাঁসের কোনো সুযোগ নেই : প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী    |    বিভাগীয় সংবাদ : চাঁদপুরের কল্যাণপুর ইউপিতে ১ বছরে ৩ কোটি টাকার উন্নয়ন কাজ সম্পন্ন * প্রাথমিক সমাপনীতে চাঁদপুরে ৫৪ হাজার ৭শ, ৫৬ পরীক্ষার্থী অংশ নিয়েছে   |    আন্তর্জাতিক সংবাদ : বেইজিংয়ে অগ্নিকান্ডে ১৯ জনের মৃত্যু, আহত ৮ * জিম্বাবুয়েতে সেনাপ্রধানের সাথে মুগাবের সাক্ষাৎ * আইএসর হাতছাড়া পুরো ইরাক * শ্রীলঙ্কায় সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা : সৈন্যরা সতর্কাবস্থায়   |   

মিয়ানমারে সহিংসতা বন্ধে দ্রুত পদক্ষেপের আহ্বান জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদের

জাতিসংঘ (যুক্তরাষ্ট্র), ১৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ (বাসস ডেস্ক) : জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদ বুধবার মিয়ানমারে সহিংসতা বন্ধে দ্রুত পদক্ষেপ নেয়ার আহ্বান জানিয়েছে। এদিকে জাতিসংঘ মহাসচিব এন্তোনিও গুতেরেস রাখাইন রাজ্যে সেনা তৎপরতাকে মূলত রোহিঙ্গা মুসলিমদের জাতিগত নির্মূল অভিযান হিসেবে বর্ণনা করেছেন।
নিরাপত্তা পরিষদের ১৫ সদস্য বুধবার রুদ্ধদ্বার বৈঠক শেষে রাখাইন রাজ্যে নিরাপত্তা বাহিনীর দমন-পীড়নের নিন্দা এবং সহিংসতা বন্ধে দ্রুত পদক্ষেপ নেয়ার আহ্বান জানিয়েছে। মিয়ানমারের অন্যতম সমর্থক চীনও বৈঠকে অংশ নেয়। খবর এএফপির।
জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদ এ প্রথমবারের মতো মিয়ানমারের রোহিঙ্গা নির্যাতন নিয়ে সর্বসম্মত প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে।
গত মাসে রোহিঙ্গা জঙ্গিদের হামলার জবাবে মিয়ানমারের সেনাবাহিনী রাখাইন রাজ্যে ব্যাপক দমন-পীড়ন ও জ্বালাও-পোড়াও শুরু করে। এরই প্রেক্ষিতে প্রায় তিন লাখ ৮০ হাজার রোহিঙ্গা সীমান্ত পাড়ি দিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করে।
মিয়ানমার নেত্রী অং সান সুকির প্রতি রোহিঙ্গা নির্যাতন বন্ধ এবং তাদের পাশে দাঁড়ানোর একের পর এক আন্তর্জাতিক আহ্বান তীব্র হয়ে ওঠে। সুকির মুখপাত্র জানান, তিনি আগামী সপ্তাহে মিয়ানমারের শান্তি ও পুনর্মিলন নিয়ে বক্তব্য দেবেন। এর আগে জানানো হয়েছে, রোহিঙ্গা পরিস্থিতির কারণে তিনি চলতি মাসের শেষ দিকে অনুষ্ঠেয় জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে যোগ দেবেন না।
নিউইয়র্কে এক সংবাদ সম্মেলনে জাতিসংঘ মহাসচিব রাখাইন রাজ্যে সামরিক অভিযান বন্ধের আহ্বান জানিয়ে বলেছেন, গণহারে রোহিঙ্গাদের বিতাড়ন করা হচ্ছে যা জাতিগত নির্মূলের শামিল।
তিনি আরো বলেন, আমি মিয়ানমার কর্তৃপক্ষের প্রতি অবিলম্বে সামরিক পদক্ষেপ বন্ধ, সহিংসতার অবসান এবং আইনের শাসন প্রতিষ্ঠাসহ দেশ ত্যাগে বাধ্য হওয়া রোহিঙ্গাদের ফিরে যাওয়ার অধিকারকে স্বীকৃতি দেয়ার আহ্বান জানাচ্ছি।
রোহিঙ্গারা জাতিগত নির্মূলের শিকার এ বিষয়ে তিনি একমত কিনা এ প্রশ্নের জবাবে মহাসচিব বলেন, যখন এক-তৃতীয়াংশ রোহিঙ্গা দেশ থেকে পালাতে বাধ্য হয়, তখন বিষয়টিকে বর্ণনা করার জন্যে এর চেয়ে ভালো শব্দ কী হতে পারে?
গুতেরেস বলেন, মিয়ানমার সরকারকে হয় রোহিঙ্গাদের নাগরিকত্ব দিতে হবে, অথবা তাদের বৈধ অবস্থান নিশ্চিত করতে হবে, যাতে তারা স্বাভাবিকভাবে বাঁচতে পারে।
সহিংসতার নিন্দা করে নিরাপত্তা পরিষদ রাখাইন রাজ্যে ত্রাণকর্মীদের পৌঁছানোর বিষয়টি নিশ্চিত করারও আহ্বান জানিয়েছে।