ঢাকা, বৃহস্পতিবার, এপ্রিল ১৯, ২০১৮

সংবাদ শিরোনাম 

জাতীয় সংবাদ : প্রবাসীদের ভোটার করার ক্ষেত্রে দ্বৈত নাগরিকত্ব প্রধান সমস্যা : সিইসি * মৌলভীবাজারে আগর শিল্পপার্ক স্থাপন করা হবে : আমু   |   রাষ্ট্রপতি : পাঁচটি বিলে রাষ্ট্রপতির সম্মতি   |    অর্থনীতি : অর্থবছরের প্রথম ৮ মাসে যুক্তরাষ্ট্রে রফতানিতে ১.৬২ শতাংশ প্রবৃদ্ধি * সিএনজি-থ্রী হুইলার্স করের আওতায় আসছে   |    জাতীয় সংবাদ : উৎসব কেন্দ্রিক পর্যটন গড়ে তোলা এখন সময়ের দাবি : বিমান ও পর্যটনমন্ত্রী * এক মাসের মধ্যে মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবা শুরু : মোজাম্মেল হক * ২০২০ সালের মধ্যে দেশের বনাঞ্চল ২০ শতাংশে উন্নীত করা হবে   |    আন্তর্জাতিক সংবাদ : আর্মেনিয়ায় সরকার বিরোধী বিক্ষোভকারী আটক   |    আন্তর্জাতিক সংবাদ : রাসায়নিক অস্ত্র বিশেষজ্ঞদের নিরাপত্তা বিষয়ে সিরিয়া ও রাশিয়ার সাথে জাতিসংঘের আলোচনা * ইন্দোনেশিয়ায় ভূমিকম্পে ২ জনের মৃত্যু, আহত ২১ *উ.কোরিয়ায় আটক জাপানী নাগরিকদের দেশে ফিরিয়ে আনতে সহযোগিতার অঙ্গীকার ট্রাম্পের   |   খেলাধুলার সংবাদ : শনিবার শুরু হচ্ছে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক ভলিবল *আইপিএল : রানার অলরাউন্ড নৈপুণ্যে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে উঠলো কলকাতা    |    বিভাগীয় সংবাদ : বানিয়াচংয়ে বাস খাদে, আহত ১০ * জয়পুরহাটে শিশু খাদ্য আইন ও বিধিমালা বিষয়ক অবহিতকরণ সভা *ভোলায় ভুট্টার বাম্পার ফলনের সম্ভাবনা * নকলায় কৃষি ইকোপার্ক গড়ে উঠেছে   |   

দেশের স্বাস্থ্য খাতের অর্জনকে ঊর্ধ্বে নিতে হলে চিকিৎসা গবেষণার প্রতি আরো মনোযোগ দিতে হবে : স্বাস্থ্যমন্ত্রী

ঢাকা, ১৩ জানুয়ারি ২০১৭ (বাসস) : স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, দেশের স্বাস্থ্য খাতের অর্জনকে আরো ঊর্ধ্বে নিতে হলে চিকিৎসা গবেষণা খাতের প্রতি আরো মনোযোগ দিতে হবে।
বৃহষ্পতিবার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডা. কামরুল হাসান খানের নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধিদল সচিবালয়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রীর সাথে সাক্ষাৎ করতে আসলে তিনি এ কথা বলেন।
মোহাম্মদ নাসিম বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও এই খাতে গবেষণার ওপর বার বার গুরুত্বারোপ করছেন। চিকিৎসকদের পেশাগত উৎকর্ষতা বাড়াতে চিকিৎসা শিক্ষার মানোন্নয়নেও এই বিশ^বিদ্যালয়কে আরো অগ্রণী ভূমিকা রাখতে হবে।
আওয়ামী লীগ সরকারের এই মেয়াদে বাংলাদেশের স্বাস্থ্য খাতের অর্জন বিশ^ব্যাপী প্রশংসিত হচ্ছে জানিয়ে মোহাম্মদ নাসিম বলেন, চিকিৎসা খাতে দেশের অগ্রগতির সাথে সাথে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ^বিদ্যালয়ের সাফল্যও অনেক দেশের কাছে উদাহরণ। বিএসএমএমইউকে সেন্টার অব একসেলেন্স হিসেবে ইতোমধ্যে স্বীকৃতি দেয়া হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বর্তমান সরকার দেশের জনগণের জন্য বিনামূল্যে আন্তর্জাতিক মানের স্বাস্থ্যসেবা পৌঁছে দেয়ার যে পরিকল্পনা হাতে নিয়েছে বিএসএমএমইউর উন্নয়নও তার অংশ।
এ সময় স্বাস্থ্যমন্ত্রী দেশের সার্বিক চিকিৎসা ব্যবস্থাসহ স্বাস্থ্য ব্যবস্থাপনা ও চিকিৎসা গবেষণার মান বাড়াতে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়কে আরো তৎপর হওয়ার অহবান জানান এবং গবেষণা ও স্বাস্থ্য ব্যবস্থাপনার মান বাড়ানোর লক্ষ্যে সরকারের সবধরনের সহযোগিতা অব্যাহত রাখার আশ্বাস প্রদান করেন।
প্রতিনিধিদলে অন্যান্যের মধ্যে বিএসএমএমইউর উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ডা. শহীদুল্লাহ সিকদার, অধ্যাপক ডা. শারফুদ্দিন আহমেদ, অধ্যাপক ডা. জাকারিয়া স্বপন, কোষাধক্ষ্য অধ্যাপক ডা. আলী আসগর মোড়ল, রেজিস্ট্রার অধ্যাপক ডা. আব্দুল হান্নান উপস্থিত ছিলেন।

সম্পর্কিত সংবাদ