ঢাকা, রবিবার, মে ২৭, ২০১৮

সংবাদ শিরোনাম 

জাতীয় সংবাদ : জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার প্রদান করা হবে ৮ জুলাই * সুযোগ পেলে নারী নিজের কর্মক্ষেত্র তৈরীর মাধ্যমে স্বাবলম্বী হতে পারে : ড. শিরীন শারমিন * চীনের বিনিয়োগকারীরা বাংলাদেশকে বিনিয়োগের আকর্ষণীয় স্থান হিসেবে দেখছেন   |    অর্থনীতি : চীনের বিনিয়োগকারীরা বাংলাদেশকে বিনিয়োগের আকর্ষণীয় স্থান হিসেবে দেখছেন * অর্থনীতি সমিতির ১২ লাখ ১৬ হাজার কোটি টাকার বিকল্প বাজেট পেশ   |    জাতীয় সংবাদ : মাদক নির্মূলে সরকারের সিদ্ধান্ত সঠিক : আমু * মাদক ব্যবসার সঙ্গে জড়িত কেউই ছাড় পাবে না : সেতুমন্ত্রী * মাদক বিরোধী অভিযানে তথ্য মন্ত্রণালয় কাজ করছে : তথ্য প্রতিমন্ত্রী * স্বাস্থ্য সুরক্ষায় বিভিন্ন সিদ্ধান্তের মধ্যদিয়ে শেষ হলো বিশ্ব স্বাস্থ্য সম্মেলন   |   প্রধানমন্ত্রী : প্রধানমন্ত্রী কলকাতা থেকে দেশে ফিরেছেন * কাজী নজরুল বিশ্ববিদ্যালয় থেকে প্রধানমন্ত্রীর ডি. লিট ডিগ্রি গ্রহণ * নেতাজী সুভাষ বসু জাদুঘর পরিদর্শন করলেন প্রধানমন্ত্রী   |   খেলাধুলার সংবাদ : আন্ডারডগ নাইজেরিয়ার চোখ নক আউট পর্বে * জাপানে উষ্ণ অভ্যর্থনা পেলেন ইনিয়েস্তা *ইংল্যান্ড সিরিজ থেকে ছিটকে গেলেন পাকিস্তানী ব্যাটসম্যান বাবর   |    বিভাগীয় সংবাদ : মাগুরায় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ২ * হবিগঞ্জে জনপ্রিয় হচ্ছে লাল জামরুল * নড়াইলে ৬ মাদক বিক্রেতাসহ ৩৪ জন আটক *জয়পুরহাটে কৃষি প্রণোদনার আওতায় আউস ধান রোপণ সম্পন্ন   |    আন্তর্জাতিক সংবাদ : উত্তর কোরিয়ার সঙ্গে বৈঠক এখনও হতে পারে : ট্রাম্প * ওমানের দক্ষিণাঞ্চলে ঘুর্ণিঝড় মেকুনুর আঘাতে হতাহত ৪   |   

বাংলাদেশে বিনিয়োগ করলে সিঙ্গাপুরের বিনিয়োগকারীরা লাভবান হবেন : তোফায়েল আহমেদ

ঢাকা, ১৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ (বাসস) : বাংলাদেশে বিনিয়োগ করলে সিঙ্গাপুরের বিনিয়োগকারীরা লাভবান হবেন বলে জানিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ।
মঙ্গলবার সিঙ্গাপুরে বাংলাদেশ বিজনেস চেম্বার, সিঙ্গাপুর আয়োজিত সেমিনার টু প্রমোট ট্রেড এন্ড কমার্স বিটুইন বাংলাদেশ এন্ড সিঙ্গাপুর শীর্ষক বিজনেস সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তোফায়েল আহমেদ এ কথা বলেন। ঢাকায় বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আজ একথা জানানো হয়।
বাংলাদেশ বিজনেস চেম্বার, সিঙ্গাপুরের প্রেসিডেন্ট মো. শহিদুজ্জামানের সভাপতিত্বে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন সিঙ্গাপুরে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মো. মোস্তাফিজুর রহমান। অনুষ্ঠানে সিঙ্গাপুরের ব্যবসায়ী ও বিনিয়োগকারীগণ এবং সিঙ্গাপুরে বাংলাদেশী ব্যবসায়ী প্রতিনিধিগণ উপস্থিত ছিলেন।
বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ বিনিয়োগের জন্য খুবই লাভজনক স্থান। সরকারের নিয়োগবান্ধব নীতি ও পরিবেশ বিনিয়োগকারীদের আকৃষ্ট করছে। বিভিন্ন দেশের বিনিয়োগকারীগণ বাংলাদেশে বিনিয়োগ করতে শুরু করেছে।
তিনি বলেন, বাংলাদেশে এখন পর্যাপ্ত দক্ষ জনশক্তি রয়েছে, এখানে কম খরচে বিশ^মানের পণ্য উৎপাদন করা সম্ভব। প্রধানমন্ত্রী ঘোষিত ১০০টি স্পেশাল ইকোনমিক জোনে সিঙ্গাপুরের বিনিয়োগকারীগণ বিনিয়োগ করতে এগিয়ে এলে বাংলাদেশ সরকার প্রয়োজনীয় সব ধরনের সহযোতিা প্রদান করবে।
তোফায়েল আহমেদ বিনিয়োগকারীদের স্বার্থ রক্ষায় সরকার আইন প্রণয়ন করে সুরক্ষা দিয়েছে উল্লেখ করে বলেন, এখন বাংলাদেশে যে কোন বিনিয়োগকারী শতভাগ বিনিয়োগ করতে পারে, প্রয়োজনে লাভসহ সমুদয় অর্থ ফিরিয়ে নিতে পারে বিনিয়োগকারী।
মন্ত্রী বলেন, সরকার রপ্তানি বাণিজ্য প্রসারে বিভিন্ন দেশের সাথে এফটিএ স্বাক্ষর করছে। প্রয়োজন হলে বাংলাদেশ সিঙ্গাপুরের সাথে এফটিএ করার চিন্তা করবে। বাংলাদেশের বিপুলসংখ্যক ট্যুরিস্ট সিঙ্গাপুরে আসে, বাংলাদেশও সিঙ্গাপুরের জন্য ভালো ট্যুরিস্ট স্পট হতে পারে। এ জন্য বাংলাদেশ সরকার বিশেষ উদ্যোগ গ্রহণ করবে, যাতে সিঙ্গাপুরের ট্যুরিস্ট বাংলাদেশে আসতে আগ্রহী হয়। এজন্য উভয় দেশের ব্যবসায়ীদের দায়িত্বশীল ভূমিকা পালন করতে হবে।
বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ দ্রুত সবক্ষেত্রে এগিয়ে যাচ্ছে উল্লেখ করে তোফায়েল আহমেদ বলেন, বাংলাদেশ এখন আর তলাবিহীন ঝুড়ি বা দরিদ্র দেশের রোল মডেল নয়। বাংলাদেশ এখন উন্নয়নের রোল মডেল। তিনি বলেন, ১৯৭১-৭২ অর্থবছরে বাংলাদেশের জাতীয় বাজেট ছিল ১৭৫ কোটি টাকা, আজ সেখানে জাতীয় বাজেট ৪ লাখ ২০৬ কোটি টাকা। বাংলাদেশ ১৯৭২-৭৩ সালে ২৫টি পণ্য কয়েকটি দেশে রপ্তানি করে আয় করতো ৩৪৮.৪২ মিলিয়ন মার্কিন ডলার। আজ বিশে^র প্রায় ১৯৯টি দেশে ৭৪৪টি পণ্য রপ্তানি করে আয় করছে সার্ভিস সেক্টরসহ ৩৮.৫ বিলিয়ন মার্কিন ডলার।
বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, ২০২১ সালে এ রপ্তানির পরিমান দাঁড়াবে ৬০ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। ব্যাংকে বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ ৩৩ বিলিয়ন মার্কিন ডলারের বেশি, রেমিটেন্স আসছে প্রায় ১৫ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। বাংলাদেশের অর্থনীতি বিগত যেকোন সময়ের চেয়ে অনেক শক্তিশালী। বর্তমানে বাংলাদেশের মানুষের মাথাপিছু আয় ১৬১০ মার্কিন ডলার। নি আয়ের দেশ থেকে উন্নয়নশীল দেশে উন্নীত হবার সকল শর্ত বাংলাদেশ ইতোমধ্যে পূরণ করেছে, কিছুদিনের মধ্যে বাংলাদেশ উন্নয়নশীল দেশের কাতারে উন্নীত হবে বলে তিনি উল্লেখ করেন।

সম্পর্কিত সংবাদ